বাস্তবতায় লকডাউন শিথিল হলেও জীবন বাঁচাতে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলুন- মৃণাল কান্তি দাস এমপি

মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সাংসদ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি এক বিবৃতিতে বলেছেন- বাস্তবতার প্রয়োজনে লকডাউন শিথিল হলেও জীবন বাঁচাতে শতভাগ স্বাস্থ্যবিধি সুরক্ষা বিধি মেনে চলুন। স্বাস্থ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে সামাজিক সচেতনতা সৃষ্টি করুন।

অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি বলেন, কর্মহীন খেটে খাওয়া মানুষের জীবন-জীবিকা এবং পবিত্র ঈদুল আযহার কোরবানীর পশু ক্রয়-বিক্রয়সহ বিভিন্ন বাস্তবিক প্রয়োজনে চলমান লকডাউন সাময়িকভাবে কিছুটা শিথিল করা হলেও এই সময়ে জনসমাগম সৃষ্টি থেকে বিরত থাকতে হবে। লকডাউন শিথিল হলেও বৈশ্বিক মহামারি করোনার ভয়াবহ বিস্তার থেমে থাকবে না- যদি না আমরা সকলেই স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিধি মেনে চলার মধ্য দিয়ে সামাজিক প্রতিরোধ গড়ে তুলতে না পারি।

তিনি বলেন, প্রাণঘাতি করোনা মোকাবিলায় প্রয়োজন সমন্বিত প্রচেষ্টা। সরকারের বিধি-নিষেধ মেনে তথা স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিধি মেনে দৈনন্দিন কার্যক্রম সম্পন্ন করা। সকলেই মাস্ক ব্যবহার করুন- নিয়মিত হাত ধোয়াসহ অন্যান্য স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার কোন বিকল্প নেই।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে এই মহামারির কারণে আমরা অনেকেই আমাদের আপজনকে হারিয়েছি। অনেকেই অখনও হাসাপাতালের বেডে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছে। অসংখ্য মানুষ অসুস্থ হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। প্রতিনিয়ত সংক্রমণের সংখ্যা ও মৃত্যুর মিছিল বৃদ্ধি পাচ্ছে। অথচ আমরা সকেলই যদি সচেতনতার ব্যুহ সৃষ্টি করতে পারতাম তাহলে পরিস্থিতি এতটা ভয়াবহ হতো না। কারণ সমাজের শতভাগ মানুষ এক সাথে সচেতন হয়ে না উঠলে এই সমস্যা সমাধান করা সম্ভব নয়। আসুন সকলেই সচেতন হই, স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিধি মেনে চলি এবং অন্যকে সচেতন করি।

তিনি বলেন, পবিত্র ঈদুল আযহাকে সামনে রেখে পশু ক্রয়-বিক্রয় এবং কোরবানী সম্পন্ন ও মাংস বিতরণকে কেন্দ্র করে করোনা ভাইরাস বিস্তারের সম্ভাবনা যাতে সৃষ্টি না হয় সেজন্য সকলকে সচেতন হতে হবে। স্বাস্থ্য বিধি মেনে কোরবানীর পশু ক্রয়-বিক্রয় এবং মাংস বিতরণ কার্যক্রম পরিচালনা করতে হবে। ঈদের খুশি পারস্পারিকভাবে ভাগাভাগি করে নিতে অসহায় কর্মহীন মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে। অর্থনৈতিকভাবে সমস্যাগ্রস্ত মানুষকে সহায়তা করতে হবে। এজন্য মাজের বিত্তবান মানুষের এগিয়ে আসতে হবে।