বিএনপি-জামাত অপশক্তির ষড়যন্ত্র মোকাবিলায় শক্তিশালী সংগঠন গড়ে তুলতে হবে – অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি

মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি বলেছেন, উগ্র-সাম্প্রদায়িকগোষ্ঠী ও বিএনপি-জামাত অপশক্তির ষড়যন্ত্র মোকাবিলায় শক্তিশালী সংগঠন গড়ে তুলতে হবে। জন্ম ও মৃত্যু মহান সৃষ্টিকর্তার ইচ্ছা। দেশপ্রেমিক মানুষের মৃত্যু নেই। পৃথিবীতে জন্মগ্রহণ করে কিছু মানুষ তাদের কর্ম ও খ্যাতির দ্বারা মানুষের মনে চির জাগরুক থাকেন।

গজারিয়া উপজেলা ছাত্রলীগ ফাউন্ডেশন আয়োজিত আওয়ামী লীগের সদ্য প্রয়াত সভাপতি সোলায়মান দেওয়ানের স্মরণ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি। অনুষ্ঠানে পবিত্র কোরআন তেলোয়াতের মাধ্যমে গজারিয়া উপজেলার প্রয়াত নেতাদের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয় এবং প্রয়াত সোলায়মান দেওয়ান এবং গজারিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট কামরুল ফিরোজ, সাবেক জাতীয় সংসদ সদস্য মমতাজ বেগম, যুব লীগ সভাপতি মাহবুবউল মজনু, সালাহউদ্দিন সেলিমসহ সাম্প্রতিক সময়ে মৃত্যুবরণকারী নেতা-কর্মীদের স্মরণে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন- সাবেক উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রেফায়েতুল্লাহ খান তোতা, ডা. মাযহারুল হক তপন, আতাউর রহমান নেকি খোকন, মোজাম্মেল হোসেন, হাফিজউজ্জামান জিতু, বাবুল আক্তার, মনিরুল হক মিঠু, নুরুল ইসলাম, সাইদুর রহমান খান, মিজানুর রহমান প্রধান, লোকমান হোসেন, সোহরাব হোসেন, আজিম উদ্দিন ফরায়েজী, কামরুজ্জামান সরকার, হারুন উর রশীদ মোল্লা, মহীউদ্দিন খান, আসিফ চৌধুরী অরেঞ্জ, আহমদ রুবেল প্রমুখ।

অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস বলেন, মরহুম সোলায়মান দেওয়ান সারাজীবন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নীতি ও মূল্যবোধ প্রতিষ্ঠার সংগ্রাম করেছেন। গজারিয়া উপজেলায় আওয়ামী লীগের শক্তিশালী সংগঠন গড়ে তুলতে অবদান রেখেছেন। বঙ্গবন্ধুকন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার একজন একনিষ্ঠ কর্মী হিসেবে কাজ করেছেন। সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি ও পরোপকারিতা ছিল তার চারিত্রিক গুণাবলীর অন্যতম বৈশিষ্ট্য।

তিনি বলেন, দেশপ্রেমিক মানুষের মৃত্যু নেই। পৃথিবীতে জন্মগ্রহণ করে কিছু মানুষ তাদের কর্ম ও খ্যাতির দ্বারা মানুষের মনে চির জাগরুক থাকেন। প্রত্যেকটি রাজনৈতিক কর্মীকে নিজেকে দেশপ্রেমিক নাগরিক হিসেবে, একজন খাঁটি সমাজকর্মী হিসেবে বিকশিত হতে হবে। প্রিয় বাংলাদেশের মাটি ও মানুষের জন্য যে অবদান রাখতে হবে।

তিনি বলেন, উগ্র-সাম্প্রদায়িকগোষ্ঠী ও বিএনপি-জামাত অপশক্তি মুক্তিযুদ্ধের চেতনা এবং আওয়ামী লীগ বিরোধী ষড়যন্ত্রে লিপ্ত রয়েছে। এই অপশক্তির ষড়ন্ত্র ও চক্রান্ত মোকাবিলায় শক্তিশালী সংগঠন গড়ে তুলতে হবে।

তিনি বলেন, বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাস পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে দ্বিতীয় পর্যায়ে আঘাত হেনেছে। বিশেষজ্ঞগণ বাংলাদেশেও করোনার প্রকপ বৃদ্ধির আশঙ্কা করছেন। সকলকে স্বাস্থ্য সচেতন হতে হবে। স্বাস্থ্যকর পরিবেশ নিশ্চিত করতে হবে। পরিস্কার-পরিচ্ছন্নতা রক্ষা করতে হবে। নিয়মিত হাত ধোঁয়া, হ্যান্ড সেনিটাইজার ব্যবহার, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা এবং মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে। সেই সাথে খাবারেও আনতে হবে পরিবর্তন। গরম পানি পান করতে হবে।