আজ মানুষের বড় দুর্দিন দল-মতের উর্ধ্বে উঠে মানবসেবায় এগিয়ে আসুন – অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি

মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস এমপি বলেছেন, প্রাণঘাতি মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে আজ মানুষের বড় দুর্দিন। সমাজের সামর্থ্যবানরা এই দুঃসময়ে দল-মতের উর্ধ্বে উঠে মানবসেবায় এগিয়ে আসুন।

আজ মুন্সীগঞ্জ সদর উপজেলার মীর কাদিম পৌর এলোকায় সামাজিক দূরত্ব মেনে সমাজের বিশিষ্টজন, দলীয় নেতা-কর্মী এবং সাধারণ মানুষের সাথে মতবিনিময়কালে এ কথা বলেন তিনি। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন- পৌর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ওয়াহিদুজ্জামান বাসু, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি আল মাহমুদ বাবু, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও কাউন্সিলর রহিম বাদশা, আব্দুস সালাম, কাউন্সিলর জলিল মাদবর, উপজেলা কৃষক লীগ সভাপতি মো. পিয়ার হোসেন, পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি খালিদ মাহমুদ রফি, স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি মো. সেকান্দার প্রমুখ।

অ্যাডভোকেট মৃণাল কান্তি দাস বলেন, করোনা ভাইরাসে বিপর্যস্ত মানুষের জীবন। আজ মানুষের দুঃখের দিন- মানুষের বড় দুর্দিন। কখনো এমন দুঃসময়ের সম্মুখিন হয়নি মানুষ। এ অসময়ে রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীদের প্রধানতম দায়িত্ব মানুষের পাশে দাঁড়ানো। মানবিকতা ও সহমর্মিতায় জাগ্রত হয়ে সমাজের বিশিষ্টজনদের সাথে নিয়ে মানবিক সংকট মোকাবিলা করা। সমাজের সামর্থ্যবানরা এই দুঃসময়ে দল-মতের উর্ধ্বে উঠে মানবসেবায় এগিয়ে আসুন।

তিনি বলেন, করোনা ভাইরাসের প্রকোপ থেকে মুক্ত থাকতে সচেতনতা ও স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলার কোনো বিকল্প নেই। আরও বেশি সচেতন হতে হবে। স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলতে হবে।

তিনি বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার সরকার মানুষের কষ্ট লাঘব করতে যথাসম্ভব প্রয়াস চালিয়ে যাচ্ছে। মানুষের ঘরে ঘরে খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। ৫০ লক্ষ মানুষকে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে নগদ অর্থ প্রেরণ করা হচ্ছে। সরকারের পাশাপাশি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে। সমাজের অনেক বিত্তবান মহৎপ্রাণ মানুষও এগিয়ে আসছেন। সমাজের সকল সামর্থ্যবানরা এই দুঃসময়ে দল-মতের উর্ধ্বে উঠে মানবসেবায় এগিয়ে আসলে সংকট মোকাবেলা আরও সহজতর হবে।